ভারত-চীন বাণিজ্য আলোচনায় অচলাবস্থা

ভারত-চীন বাণিজ্য আলোচনায় অচলাবস্থা

এসএএম স্টাফ,
শেয়ার করুন

ভারত ও চীনের মধ্যকার বাণিজ্য আলোচনায় অচলাবস্থা অব্যাহত রয়েছে। কোনো পক্ষই অচলাবস্থা অবসানে ছাড় দিতে নারাজ হওয়ায় তা নিরসন হচ্ছে না বলে ভারতীয় সরকারি সূত্র জানিয়েছে।

ভারত-ভুটান-চীন ত্রিদেশীয় সীমান্তের দোকলামে সামরিক মুখোমুখি অবস্থার প্রেক্ষাপটে কৃষি পণ্যবিষয়ক দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য আলোচনায় অগ্রগতি হয়নি বলে ভারতীয় কর্মকর্তারা জানিয়েছেন।

ভারতীয় চাল, ডালিম, ঢেড়শ, গোশতের বাজারে প্রবেশাধিকারের ব্যাপারে চীনা কর্মকর্তারা ভিন্নমত প্রকাশ করেছেন। অন্যদিকে চীনা আপেল, নাশপতি, দুধ ও দুগ্ধজাত সামগ্রী আমদানি নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্তে অনড় রয়েছে ভারত। বেইজিংয়ে ভারতীয় দূতাবাসে শিগগিরই আলোচনার সর্বশেষ অবস্থা সম্পর্কে অবগত করা হবে।

চীনের সাথে ভারতের বিপুল বাণিজ্য ঘাটতি রয়েছে। ২০১৫-১৬ সময়কালে ঘাটতি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫২.৭ বিলিয়ন ডলার। ২০০৩-০৪ সময়কালে তা ছিল মাত্র ১.১ বিলিয়ন ডলার। তবে ২০১৬-১৭ সময়কালে ঘাটতি কিছুটা কমে ৫১.১ বিলিয়ন ডলারে দাঁড়িয়েছে। ভারত এখন তাদের মহিষের গোশত চীনা বাজারে প্রবেশের সুবিধার ওপর জোর দিচ্ছে।

এদিকে ১১ জুলাই সিঙ্গাপুরে বক্তৃতাকালে ভারতের পররাষ্ট্রসচিব এস জয়শঙ্কর বলেছেন, চীনা বাজারে প্রবেশের প্রতিবন্ধকতার কারণে দেশটির সাথে ভারতের বিপুল বাণিজ্য ঘাটতি সৃষ্টি হয়েছে।

তিনি বলেন, সীমান্ত বিরোধ অবসানেও আলোচনা চলছে।

তিনি উল্লেখ করেন, দুই দেশের নেতারা আস্তানায় সাক্ষাৎকালে তারা একমত হয়েছিলেন, ভারত ও চীনের কোনো অবস্থাতেই উচিত হবে না তাদের মতপার্থক্যকে বিরোধে পরিণত করা। এই সমঝোতা কৌশলগত বিচক্ষণতার ওপর গুরুত্বারোপ করে, যা দ্ইু দেশকে একে অপরের মুখোমুখি হওয়ার সময় অব্যাহত রাখতে হবে।

SOURCEদি হিন্দু
শেয়ার করুন