ভুটানে ২০১৮ সালে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছে নির্বাচন কমিশন

ভুটানে ২০১৮ সালে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছে নির্বাচন কমিশন

এসএএম স্টাফ,
শেয়ার করুন

ভুটানে ২০১৮ সালে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছে দেশটির নির্বাচন কমিশন। নব-গঠিত দু’টি রাজনৈতিক দল দ্রুক গাকি তশোগপা এবং দ্রুক কুয়েনফেন তশোগপা এখনো ভুটান নির্বাচন কমিশনে (ইসিবি) নিবন্ধন করেনি।

ইসিবি জানিয়েছে, রাজনৈতিক দল দু’টি এখন সদস্য ও সমর্থন সংগ্রহের মতো প্রস্তুতিমূলক কাজ করছে।

রাজনৈতিক দল নিবন্ধন ২০১৫ বিধান অনুযায়ী, নিবন্ধনের পরেই কেবল কোনো রাজনৈতিক দল সংবিধানে ঘোষিত সুবিধাগুলো লাভ করতে পারে। আর নিবন্ধন লাভের পর রাজনৈতিক দলগুলোকে অবশ্যই ইসিবির আচরণবিধি অনুসরণ করতে হবে।

ইসিবি আরো জানিয়েছে, মিডিয়া বিশেষ কোনো দলের কথা প্রচার করতে পারবে না।

গাকি তশোগপা পার্টির প্রতিষ্ঠাতা চেকু ডুকপা বলেছেন, তার দল শিগগিরই ইস্তেহার চূড়ান্ত করবে। তিনি চলতি মাসের মধ্যেই তার দলের নিবন্ধন করাতে পারবেন বলে আশাবাদ প্রকাশ করেছেন।

তিনি বলেন, সদস্য এবং সমর্থনের দিক থেকে তার দলের অবস্থান সংহত হবে। তিনি বলেন, আমরা রাজনীতির দৃশ্যপট পাল্টে দিতে চাই। আমরা অদূর ভবিষ্যতে আরো উত্তেজনা সৃষ্টি করতে যাচ্ছি।

দলের নিবন্ধন-প্রক্রিয়া নিয়ে তিনি দুবার ইসিবি কর্মকর্তাদের সাথে বৈঠক করেছেন। তিনি বলেন, আমাদের শিগগিরই পার্টি কনভেনশন করতে হবে। ওই কনভেনশনেই সভাপতিসহ দলের কর্মকর্তাদের নির্বাচন করা হবে।

দ্রুক কুয়েনফেন তশোগপার প্রমোটার জিগমে দ্রুকপা বলেন, তার দল জুনে প্রথম কনভেনশন করবে। তিনি দলের সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন। দলটির সদরদফতর থিম্পুতে।

SOURCEকুয়েনসেল
শেয়ার করুন