‘নির্যাতনের মিথ্যা অভিযোগ করেছেন শহিদুল’

‘নির্যাতনের মিথ্যা অভিযোগ করেছেন শহিদুল’

এসএএম স্টাফ,
শেয়ার করুন

পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হওয়ার পর আলোকচিত্রী শহিদুল আলম আদালতে নির্যাতনের মিথ্যা অভিযোগ করেছেন বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ছেলে এবং তার তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়।

শনিবার (১১ আগস্ট ২০১৮) বিকেল সোয়া ৫টার দিকে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে একটি পোস্টে তিনি এ মন্তব্য করেন। আগের দিন শুক্রবার (১০ আগস্ট ২০১৮) সন্ধ্যায় আরেক পোস্টে জয় নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনে শহিদুল আলমের ভূমিকার সমালোচনা করেন।

গত ৫ আগস্ট রাতে দৃক গ্যালারির প্রতিষ্ঠাতা শহিদুলকে তারা ধানমন্ডির বাসা থেকে উঠিয়ে নেওয়া হয়। পরদিন ৬ আগস্ট (সোমবার) শিক্ষার্থীদের আন্দোলন নিয়ে বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়িয়ে উস্কানি দেওয়ার অভিযোগে তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি আইনে মামলা দিয়ে তাকে গ্রেপ্তার দেখায় পুলিশ। এ মামলায় সাত দিনের রিমান্ডে রয়েছেন শহিদুল।

প্রথম দিন আদালতে তোলার পর শহিদুলকে খালি পায়ে হাঁটতে দেখা যায়। তিনি আদালতের কাছে দাবি করেন, পুলিশ তাকে নির্যাতন করেছে এবং তার রক্তাক্ত জামা পরিষ্কার করে নতুন করে পরিয়েছে।

শনিবারের পোস্টে জয় বলেন, ‘শহিদুল আলমের নির্যাতনের অভিযোগ আমাদের সরকারের বিরুদ্ধে তার অনেক মিথ্যা ও বিভ্রান্তিকর তথ্যের মধ্যেই একটি। তাকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে নেওয়া হয়, যেখানে চিকিৎসকরা তার শারীরিক পরীক্ষা করেন। তারা নির্যাতনের কোনো প্রমাণ এমনকি ইঙ্গিতও পাননি। আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সাথে সরাসরি যোগাযোগ করে একই বিষয় জানতে পারেন।’

‘এ থেকে প্রমাণ হয় শহিদুল আসলে কতটা অসৎ। আদালতে নির্যাতনের মিথ্যা অভিযোগ করে ক্যামেরার সামনে হাঁটার সমস্যার অভিনয় করেছেন’, পোস্টে উল্লেখ করেন প্রধানমন্ত্রীর এ উপদেষ্টা।

এর আগের পোস্টে জয় বলেছিলেন, শহিদুল আলমের দেওয়া মিথ্যে পোস্ট ও অভিযোগের কারণেই শিক্ষার্থীরা উত্তেজিত হয়ে পড়ে এবং পুলিশের ওপর ও (আওয়ামী লীগের) পার্টি অফিসে হামলা চালায়।

print