সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিয়ে ‘বিশ্বাসভঙ্গের’ অভিযোগ বাংলাদেশের সাংবাদিকদের

সংবাদপত্রের স্বাধীনতা নিয়ে ‘বিশ্বাসভঙ্গের’ অভিযোগ বাংলাদেশের সাংবাদিকদের

এসএএম স্টাফ,
শেয়ার করুন
সদ্য পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে সাংবাদিকদের প্রতিবাদ সমাবেশ, ছবি: রয়টার্স

সদ্য পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন বাতিলের দাবিতে মুখে কালো কাপড় বেঁধে এবং রাস্তায় ক্যামেরা রেখে প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশের সাংবাদিকরা। এসময় তারা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে বিশ্বাস ভঙ্গের অভিযোগ করেন। সংবাদ মাধ্যমের স্বাধীনতা খর্ব করতে এই আইন করা হয়েছে বলে আশংকা করছেন তারা।

বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজে) এ কর্মসূচির আয়োজন করে।

গত মাসে পার্লামেন্টে পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের পক্ষে হাসিনা সরকার যুক্তি দেখায় যে সাইবার অপরাধ নিয়ন্ত্রণের জন্য এই আইন করা হয়েছে।

কিন্তু সাংবাদিকরা বলছেন, এই আইনে সরকারি ভবনে গিয়ে কোন কোন তথ্য গোপনে রেকর্ড করার জন্য যে ১৪ বছর কারাদণ্ডের বিধান রাখা হয়েছে তা আতংকের পরিবেশ সৃষ্টি করবে।

এই নিবর্তনমূলক আইনের কয়েকটি ধারা সংশোধন করা হবে বলে সরকার যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলো তা রাখা হয়নি বলেও অভিযোগ করেন তারা।

সম্পাদক পরিষদ গভীর হতাশা প্রকাশ করে বলে, আইনটি সংশোধনের ব্যাপারে সম্প্রতি মন্ত্রীরা যেসব প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন সেগুলো রক্ষা করা হয়নি।

এক বিবৃতিতে বলা হয়, সম্পাদক পরিষদ একে ‘বিশ্বাস ভঙ্গ বলে মনে করছে।’

সম্পাদক পরিষদ জানায় যে, গত মাসে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু ও আরো দুই মন্ত্রী সাংবাদিকদের আশ্বাস দিয়েছিলেন যে তাদের উদ্বেগটি মন্ত্রিসভার সাপ্তাহিক বৈঠকে উত্থাপন করা হবে।

বৃহস্পতিবারের সমাবেশে সাংবাদিক নেতারা বলেন, সাংবাদিকসহ দেশের সর্বস্তরের মানুষের বাক স্বাধীনতা কেড়ে নিয়ে ক্ষমতা পাকাপোক্ত করার জন্যই সরকার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন কার্যকর করেছে। এত নিকৃষ্ট আইন বিশ্বের আর কোথাও নেই। সাংবাদিক সমাজ ঘৃণা ভরে এ কালো আইন প্রত্যাখ্যান করছে। অবিলম্বে এ আইন বাতিল করতে হবে।

print
SOURCEসংকলিত
শেয়ার করুন